fbpx
ষ্টারটক বিডি ডটকম
শনিবার বিকেল নিয়ে হঠাৎ কেন এত হৈচৈ!

শনিবার বিকেল নিয়ে হঠাৎ কেন এত হৈচৈ!

মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর নতুন ছবি ‘শনিবার বিকেল’ নিয়ে হঠাৎ হৈচৈ শুরু হয়েছে। ছবিটি সেন্সর ছাড়পত্র পাওয়ার পরই ফেসবুকে এর পক্ষে বিপক্ষে পড়ছে নানা মত। হচ্ছে আলোচনা-সমালোচনা। অবশ্য অনেকেই বলছেন, প্রতিবার ছবি মুক্তির আগে এমন পরিস্থিতি ফারুকী ইচ্ছে করেই তৈরি করেন! এবারও তার ব্যতিক্রম হচ্ছে না।

মজার ব্যাপার হচ্ছে, প্রখ্যাত আইনজীবি ড. তুহিন মালিককে ক্রেডিট দিয়ে অনেকেই একটা লেখা ফেসবুকে শেয়ার করছেন। যার মূল বিষয় হচ্ছে, ‘হোলি আর্টিজানের জঙ্গিদের কারো দাড়ি-টুপি ছিল না। অথচ সেই ঘটনা নিয়ে (বাস্তবে হুবহু একই ঘটনা না, ইন্সপায়ার্ড) নির্মিত মুভিতে জাহিদ হাসানের মুখে দাড়ি, তিশার মাথায় হিজাব – ব্যাপারটা নাকি সুপরিকল্পিত ইসলামের অবমাননা। মানুষকে বোঝানো যে, দাড়ি-টুপি মানেই জঙ্গি।’

তবে কেউ কেউ এমন লেখার সমালোচনাও করছেন। ফেসবুকের একটি পেইজে বলা হচ্ছে- এই প্রচারণার কয়েকটা সমস্যা আছে। প্রথমত, এখনও পর্যন্ত ‘শনিবার বিকেল’ সিনেমাটির কোনো ট্রেলার বা টিজার বের হয়নি। এর কাহিনী সংক্ষেপ, কিংবা কোন চরিত্রে কে অভিনয় করেছে, সেটাও খুব একটা পরিষ্কার না। এবং সেগুলো বিস্তারিত না জেনেই মানুষ কন্সপিরেসী থিওরী প্রচার শুরু করে দিয়েছে।

দ্বিতীয়ত, ‘শনিবারের বিকেল’ ছবিতে জাহিদ হাসান একজন ব্যবসায়ী। মেডিকেলের নানা সামগ্রী আমদানি করেন। মানুষকে ভালোবাসেন। কিছু ঘটনার কারণে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে মুসলমানদের নানাভাবে নির্যাতন করা হচ্ছে। এ খবর শুনে কষ্ট পান। তিনি সবাইকে বোঝাতে চেষ্টা করছেন, ‘সব মুসলিম এমন নয়। আমি চাই, বিশ্বে মুসলিমরা যেন মাথা উঁচু করে সম্মানের সঙ্গে বেঁচে থাকতে পারে।’

তিশার হিজাব নিয়ে সন্দেহ করাটা পুরাই অমূলক। কারণ এটা প্রায় জিরো সম্ভাবনা যে, তিশাকে জঙ্গি চরিত্রে উপস্থাপন করা হবে। বরং ফার্স্ট লুক হিসেবে পত্রিকায় যে ছবি এসেছে, তাতে পরিষ্কার বোঝা যায়, তিশা জিম্মিদের মধ্যে একজন।

তৃতীয়ত, দুই মিনিট সময় নষ্ট করে “শনিবার বিকেল জাহিদ হাসানের চরিত্র” লিখে গুগল করলেই প্রথম আলোর যে লিংকটা আসে, সেখান থেকে জানা যায়, জাহিদ হাসানের চরিত্রটাও জঙ্গির চরিত্র না, বরং একজন ভালো মুসলমান ব্যবসায়ীর চরিত্র, যিনি “মানুষকে ভালোবাসেন” এবং সবাইকে বোঝাতে চেষ্টা করেন, “সব মুসলিম এমন নয়।

সো, ব্যাপারটা হচ্ছে, তুহিন মালিক যদি আসলেই এই স্ট্যাটাস দিয়ে থাকেন (আমি তার নামের প্রোফাইলে পাইনি), তাহলে তিনি নিজের অজান্তেই ফারুকীর এই সিনেমাটার টিজার-ট্রেলারের আগেই প্রথম নেগেটিভ প্রোমো চালু করে দিলেন। এবং ডুব কিংবা এর আগের সিনেমাগুলোর অভিজ্ঞতা থেকে আমরা জানি, ফারুকী লাভস নেগেটিভ প্রপাগান্ডা।

আর যদি এটা তুহিন মালিকের স্ট্যাটাস না হয়ে থাকে, তাহলে কেউ তার নাম দিয়ে এটা ছড়িয়ে পাবলিককে বোকা বানিয়েছে। এবং যেই পোস্ট টি শেয়ার দেওয়া হয়েছিলো সেইটি ডিলেট করে ও দিয়েছেন।

এদিকে ফেসবুকে অপর একজন লিখেছেন, ‘তিনি (মোস্তফা সরয়ার ফারুকী) ছবি বানিয়েছেন অথচ তাঁর ছবির বিরুদ্ধে প্রোপাগান্ডা ছড়ানো হয় নাই এমন ঘটনা বাংলাদেশে ঘটে নাই। তাঁর ছবির গল্প যাইহোক একদল মানুষ জেনেবুঝে তাঁর বিরুদ্ধে যাবেই যাবে।

ঋত্বিক ঘটক, সত্যজিৎ রায়, ঋতুপর্ণ ঘোষদের ছবির বিরুদ্ধে যদি ওপার বাংলার মানুষ এমন প্রোপাগান্ডা ছড়াতো তাহলে তাঁরা আজ বাংলা ভাষার সিনেমার উজ্জল নক্ষত্র হতে পারতেন না। কোলকাতার মানুষ সিনেমাটা আমাদের চাইতে হাজার গুণ বেশি বুঝে আমাদের তুলনায়। তারা তাদের মেধার যথেষ্ট শ্রদ্ধা এবং ভালবাসা দিয়েছেন। আমরা আমাদের মেধাদের ভিত্তিহীন অভিযোগে দমিয়ে রাখছি। কি বিচিত্র মানুষ আমরা (!)

‘শনিবার বিকেল’ নামে তাঁর নির্মিত ছবিটির বিরুদ্ধে এখন ইসলামের দুটি সুন্নত দাড়ী এবং হিজাব কে অবমাননার অভিযোগ তুলছেন একদল উগ্র মৌলবাদী গুষ্টি। যারা আদৌ সিনেমা বিষয়টা বুঝে কিনা সন্দেহ! শুধু মাত্র দুটি স্টিল ছবি দেখেই উগ্রপন্থীরা সাধারণ ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের উস্কে দিচ্ছে। আর তাঁরাও কিছু যাচাইবাচাই না করে তাঁকে ধর্মবিদ্বেষী সহ নানান গালিগালাজ দিয়ে যাচ্ছে।

বাংলার সাধারণ মুসলমানরা একই সাথে মোবাইলে পর্ণো এবং ওয়াজ রাখতে ভালবাসে, বাংলা চটি গোপনে পড়তে এবং নবীদের জীবনি ওয়ালে শেয়ার করতে ভালবাসে। মেয়েদের ফটোতে ‘apo naice lagaca’ লেখতে ভালবাসে আবার ‘kanke mage hegab koe’ লেখতেও তাঁরা পারদর্শী। তাদের দোষ দিয়ে কোন লাভ নেই!? আহমদ ছফা বেঁচে থাকলে উনাকে আরেকটা ‘বাঙালি মুসলমানের মন’ লেখতে অনুরোধ করতাম।

এর বাইরেও ফেসবুকে একের পর এক লেখা প্রকাশ পাচ্ছে ছবিটি নিয়ে। কেউ এর সমালোচনায় জড়াচ্ছেন। কেউ বলছেন পক্ষে। তবে যে যাই বলুন না কেন ছবি মুক্তির আগে এমন আলোচনা পরিচালককে নির্ভার করতেই পারে।

আরও পড়ুন

ব্যাতিক্রমী প্রচারণায় চমকে দিল ‘নোলক’ টিম!

ষ্টারটক বিডি ডটকম

ফের ঢালিউডে পরমব্রত চট্টোপাধ্যায়!

ষ্টারটক বিডি ডটকম

বিয়ের পর চাকুরীতে যোগ দিলেন সিয়াম আহমেদ

ষ্টারটক বিডি ডটকম

যে কারণে চলচ্চিত্র দিবসের অনুষ্ঠানে যাচ্ছেন না শাকিব খান

ষ্টারটক বিডি ডটকম

যে কারণে নতুন সিনেমায় চুক্তিবদ্ধ হচ্ছেন না অপু বিশ্বাস!

ষ্টারটক বিডি ডটকম

মৌসুমী এখনই মা হতে চাইছেন না!

ষ্টারটক বিডি ডটকম